কক্সবাজারে ১০ মরদেহ উদ্ধারের ঘটনায় দুজনকে গ্রেপ্তার

সর্বমোট পঠিত : 174 বার
জুম ইন জুম আউট পরে পড়ুন প্রিন্ট

জেলা পুলিশ সুপার মাহফুজুল ইসলাম জানান, নিহত শামসুল আলমের স্ত্রী রোকেয়া আক্তার চার জনের নাম উল্লেখ করে কক্সবাজার থানায় মামলা করেছেন। গ্রেপ্তার দুই জনই মামলার এজাহারভুক্ত আসামি। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছেন।


কক্সবাজারের নাজিরারটেকে ট্রলারে ভেসে আসা ১০ মরদেহ উদ্ধারের ঘটনায় দুই জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার (২৫ এপ্রিল) দুপুরে মহেশখালী থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তার দুজনের নাম- বাইট্টা কামাল ও করিম সিকদার।

জেলা পুলিশ সুপার মাহফুজুল ইসলাম জানান, নিহত শামসুল আলমের স্ত্রী রোকেয়া আক্তার চার জনের নাম উল্লেখ করে কক্সবাজার থানায় মামলা করেছেন। গ্রেপ্তার দুই জনই মামলার এজাহারভুক্ত আসামি। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছেন।

এদিকে ট্রলার থেকে উদ্ধার ১০ মরদেহের মধ্যে, শনাক্ত ছয় জনের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। সোমবার রাতেই মহেশখালী এবং চকরিয়ায় তাদের জানাজা শেষে দাফন করা হয়।

এর আগে কক্সবাজার সদর হাসপাতাল থেকে মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেন জেলা প্রশাসক। শনাক্ত ছয় জনের মধ্যে আছেন, মহেশখালীর শামসুল আলম, শওকত উল্লাহ, ওসমান গনি ও নুরুল কবির, এবং চকরিয়ার মো. তারেক ও মো. শাহজাহান। বাকি চার জনের পরিচয় শনাক্তে কাজ করছে সিআইডি।

এরই মধ্যে ডিএনএর জন্য নমুনাও সংগ্রহ করা হয়েছে। হত্যাকাণ্ডের প্রকৃত রহস্য উদঘাটনে সিআইডি, পিবিআইয়ের একাধিক দল কাজ করছে বলে জানিয়েছেন জেলা পুলিশ সুপার।

মন্তব্য

আরও দেখুন

নতুন যুগ টিভি