শেরপুরের গারো পল্লীতে একসঙ্গে ৬ গারো যুগলের বিয়ে

একসঙ্গে বিয়ের অনুষ্ঠানে তরুণ-তরুণীরা
সর্বমোট পঠিত : 98 বার
জুম ইন জুম আউট পরে পড়ুন প্রিন্ট

আয়োজকরা জানান, একদিনে এতোগুলো বিয়ে একটি বিরল ঘটনা। এ নবদম্পতিরা অনেকদিন ধরে গ্রামে সমাজ স্বীকৃতি ছাড়া একত্রে বাস করে আসছিলেন। এদের চার্চভূক্তকরণ করে সমাজে স্বীকৃতিদানের প্রয়োজনীয়তা থেকেই এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

শেরপুরের গারো পল্লীতে একসঙ্গে ছয় যুগলের বিয়ে সম্পন্ন হয়েছে। সোমবার (১০ জানুয়ারি) দুপুরে শ্রীবরদী উপজেলার সীমান্তবর্তী হাড়িয়াকোনা গ্রামের একটি গির্জায় বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়।

স্থানীয়রা জানান, হাড়িয়াকোনা ব্যাপ্টিস্ট চার্চে বাবেলাকোনা আদিবাসী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মিসেস কর্নিয়া সাংমার সহযোগিতায় এ গণবিয়ের আয়োজন করা হয়। চার্চ সভাপতি পা: এলিয়ে মৃ বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা পরিচালনা করেন।

অনুষ্ঠানে টিডব্লিউএ কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান প্রাঞ্জল এম সাংমা, পা. পনুয়েল মৃ, ডি. মর্নিংটন ম্রং, ডি. অন্বেষ রাংসা, সিইএস সেক্রেটারি প্রেমানন্দ রাংসা, সুন্দারী ইয়ুথ ক্লাব সভাপতি ডি. নিপুন ম্রং, বাগাছাস সভাপতি জীবন ম্রং, লেবানুস ম্রং, স্বপন মৃ, সুরঞ্জিত চিরান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও মণ্ডলীর সভ্য-সভ্যা ও এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গরা উপস্থিত ছিলেন।

আয়োজকরা জানান, একদিনে এতোগুলো বিয়ে একটি বিরল ঘটনা। এ নবদম্পতিরা অনেকদিন ধরে গ্রামে সমাজ স্বীকৃতি ছাড়া একত্রে বাস করে আসছিলেন। এদের চার্চভূক্তকরণ করে সমাজে স্বীকৃতিদানের প্রয়োজনীয়তা থেকেই এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

মন্তব্য

আরও দেখুন

নতুন যুগ টিভি