জাতীয় হকি দলের সাবেক অধিনায়ক রানা আটক

জাতীয় হকি দলের সাবেক অধিনায়ক রানা আটক
সর্বমোট পঠিত : 42 বার
জুম ইন জুম আউট পরে পড়ুন প্রিন্ট

উক্ত ঘটনা প্রেক্ষিতে গফরগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফারুক আহমেদ বৃহস্পতিবার দুপুরে ৪টায় জানান, ইউএনও মো. তাজুল ইসলামের বন্ধু জাতীয় হকি দলের সাবেক অধিনায়ক মাহবুব হাসান রানা। ঘটনার সময় ইউএনও’র অফিসে প্রবেশের চেষ্টাকালে গেইটে কর্তব্যরতদের সাথে বাধানুবাধ ও কথা কাটাকাটি। এতে ভুল বুঝাবুঝির সৃষ্টি হয়। পরে বিষয়টি উভয়ে বুঝতে পারে। এ বিষয়টি উভয়ের মাঝে সমঝোতার মাধ্যমে বৃহস্পতিবার বিকেলে সমাধা করা হবে এবং আটককৃত জাতীয় হকি দলের সাবেক অধিনায়ক মাহবুব হাসান রানা ছেড়ে দেয়া হবে বলে জানান।

ময়মনসিংহের গফরগাঁও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) নির্বাচনের ফল প্রকাশের সময় অনুমতি ছাড়াই কক্ষে প্রবেশের চেষ্টা ও ইউএনও’র গাড়িচালকের ওপর হামলার অভিযোগ উঠেছে জাতীয় হকি দলের সাবেক অধিনায়ক মাহবুব হাসান রানার বিরুদ্ধে।

এসব অভিযোগ এনে রানাকে পুলিশে সোপর্দ করেছেন ইউএনও মো. তাজুল ইসলাম। যদিও এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন মাহবুব হাসান রানা।

এ বিষয়টি উভয়ের মাঝে সমঝোতার মাধ্যমে বৃহস্পতিবার বিকেলে সমাধা করা হবে এবং আটককৃত জাতীয় হকি দলের সাবেক অধিনায়ক মাহবুব হাসান রানা ছেড়ে দেয়া হবে বলে জানান গফরগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফারুক আহমেদ।

বুধবার (৫ জানুয়ারি) রাত সাড়ে ৮টার দিকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে। ইউএনও মো. তাজুল ইসলাম বলেন, ৫ জানুয়ারি গফরগাঁওয়ে নির্বাচন হয়েছে। তাই আমার কক্ষে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) সহ ১৫ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ছিলেন। এসময় বাইরের কারও এখানে আসার অনুমতি ছিল না। কিন্তু নির্বাচনের ফলাফলকে প্রভাবিত করার জন্য মাহবুব হাসান রানা কার্যালয়ের গেট ভেঙে ভেতরে ঢুকার চেষ্টা করেন ও অফিসের কর্মচারীকে মারধর করেন। এ সময় আমার গাড়িচালক আহত হয়েছেন। পরে তাকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়। বিষয়টি জেলা প্রশাসক, স্থানীয় সংসদ সদস্য ও মেয়রকে জানানো হয়েছে ।

তবে এসব অভিযোগ অস্বীকার করে মাহবুব হাসান রানা বলেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা গফরগাঁও উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সভাপতি ও আমি সাধারণ সম্পাদক। আমি গত চার মাস ঢাকায় ছিলাম। আমি কার্যালয়ে গিয়েছিলাম ইউএনওর সঙ্গে দেখা করতে। আর কোনো উদ্দেশ্যই ছিল না। কিন্তু গেটে আটকানোর কারণে আমার পরিচিতজনদের সঙ্গে বাগবিতন্ডা হয়েছে। কোনো হামলার ঘটনাই ঘটেনি। আমাকে ফাঁসানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। আমাকে থানায় রাখা হয়েছে। আমার বিরুদ্ধে মামলা হলে আমি তা আইনিভাবে মোকাবিলা করব।

উক্ত ঘটনা প্রেক্ষিতে গফরগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফারুক আহমেদ বৃহস্পতিবার দুপুরে ৪টায় জানান, ইউএনও মো. তাজুল ইসলামের বন্ধু জাতীয় হকি দলের সাবেক অধিনায়ক মাহবুব হাসান রানা। ঘটনার সময় ইউএনও’র অফিসে প্রবেশের চেষ্টাকালে গেইটে কর্তব্যরতদের সাথে বাধানুবাধ ও কথা কাটাকাটি। এতে ভুল বুঝাবুঝির সৃষ্টি হয়। পরে বিষয়টি উভয়ে বুঝতে পারে। এ বিষয়টি উভয়ের মাঝে সমঝোতার মাধ্যমে বৃহস্পতিবার বিকেলে সমাধা করা হবে এবং আটককৃত জাতীয় হকি দলের সাবেক অধিনায়ক মাহবুব হাসান রানা ছেড়ে দেয়া হবে বলে জানান।

মন্তব্য

আরও দেখুন

নতুন যুগ টিভি