দেড় বছর ধরে ছাতক-সিলেট ট্রেন যোগাযোগ বন্ধ

দেড় বছর ধরে ছাতক-সিলেট ট্রেন যোগাযোগ বন্ধ
সর্বমোট পঠিত : 61 বার
জুম ইন জুম আউট পরে পড়ুন প্রিন্ট

ছাতক রেল স্টেশনের দায়িত্ব থাকা কেয়ারটেকার মঞ্জু মিয়া বলেন, করোনাকে উদ্দেশ্য করে ছাতকে ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়েছিল। এখন আমরা ট্রেন চলাচলের জন্য কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করেছি এখন কর্তৃপক্ষের ইচ্ছে। আমি সঠিক বলতে পারব না ট্রেন কবে চলবে।

করোনাভাইরাসের কারণে সুনামগঞ্জের ছাতক-সিলেট দেড়বছর ধরে রেলপথে বন্ধ রয়েছে ট্রেন চলাচল। সারা দেশের সাথে বর্তমানে সকল রেলপথ চালু হলেও আজ পর্যন্ত চালু হয়নি ছাতক-সিলেটে ট্রেন চলাচল। ফলে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন ট্রেনে যাতায়াতকারী এ অঞ্চলের যাত্রীরা। দ্রুত ট্রেন চালু করতে সরকার ও কর্তৃপক্ষের প্রতি জোর দাবী জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

সুনামগঞ্জ জেলার ছাতক হচ্ছে শিল্পনগরী উপজেলা হিসেবে বিখ্যাত। সেই বৃটিশ আমল থেকে দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে এই উপজেলায় ব্যবসা-বাণিজ্য চলে আসছে। ফলে ব্যবসা-বাণিজ্যের ক্ষেত্রে এ উপজেলাটি দেশ-বিদেশে শিল্পনগরী হিসেবে পরিচিতি পায়।

এ হিসেবে ১৯৫৪ সালে ছাতক-সিলেটে ৩৫ কিলোমিটার দীর্ঘ রেলপথটি স্থাপিত হয় এবং ছাতক বাজার রেলষ্ট্রেশনের উদ্বোধন করেন তৎকালিন পাকিস্তান সরকারের যোগাযোগ মন্ত্রী। উদ্বোধনের পর থেকে ১৯৮৫ সাল পর্যন্ত যাত্রী সেবায় ট্রেন ছিল একনিষ্ট। ছাতক বাজার রেল ষ্ট্রেশন থেকে প্রতিদিন চারটি ট্রেন সিলেটে যাতায়াত করতো।

এছাড়া মালামাল পরিবহনের ৪টি ট্রেনে সিমেন্ট, পাথর, চুনাপাথর, তেজপাতা ও কমলাসহ বিভিন্ন ধরনের কাঁচামাল কম খরচে পরিবহন করা হতো। ট্রেন চালুর শুরুর দিকে ছাতক থেকে সিলেটে যেতে ট্রেনে একজন যাত্রীর ভাড়া ছিল চার আনা। বর্তমানে ছাতক থেকে সিলেটের ভাড়া ১০ টাকা। আগের তুলনায় ট্রেনের গতিও বৃদ্ধি পেয়েছে। ছাতক থেকে সিলেটে পৌঁছতে তার সময় লাগছে সর্বোচ্চ এক ঘন্টা ১০ মিনিট।

করোনা ভাইরাসের কারণে সারা দেশের সাথে এ রেলপথে ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। সম্প্রতি সময়ে সারা দেশে ট্রেন চলাচল চালু হলেও প্রাচীনতম ছাতক রেলপথে ট্রেন চালু করা হচ্ছে না। যাত্রীরাও ট্রেনের সেবা পাচ্ছে না। ট্রেন পরিবহনে স্বল্প ভাড়ার পরিবর্তে এ অঞ্চলের মানুষ সড়ক পথে এখন গুনতে হচ্ছে অধিক ভাড়া। কবে এ রেলপথে ট্রেন আবারও চালু হবে এমন প্রশ্নের উত্তর মিলছে না কর্তৃপক্ষের কাছে।

স্থানীয়রা জানান, দেড় বছর ধরে কারোনার জন্য ছাতকে ট্রেন আসে না। ফলে পরিবার পরিজন নিয়ে খুব কষ্টে আছি। কারণ ট্রেন আসলে আমার দোকানে বিকি-কিনি হয় এখন ট্রেন আসে না বিক্রিও নাই এবং মাস শেষে দোকান ভাড়াটা দিতেও হিমশিম খাচ্ছি।

ছাতক রেল স্টেশনের দায়িত্ব থাকা কেয়ারটেকার মঞ্জু মিয়া বলেন, করোনাকে উদ্দেশ্য করে ছাতকে ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়েছিল। এখন আমরা ট্রেন চলাচলের জন্য কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করেছি এখন কর্তৃপক্ষের ইচ্ছে। আমি সঠিক বলতে পারব না ট্রেন কবে চলবে।

মন্তব্য

আরও দেখুন

নতুন যুগ টিভি