নকলায় পুকুরের পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু

পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু
সর্বমোট পঠিত : 71 বার
জুম ইন জুম আউট পরে পড়ুন প্রিন্ট

নকলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মুশফিকুর রহমান বলেন, ঘটনাটি শুনামাত্রই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠাই। নিহতের পরিবার বিনা ময়নাতদন্তের মাধ্যমে লাশ দাফনের জন্য স্থানীয়দের মাধ্যমে অনুরোধ করে। কিন্তু আইনগত জটিলতার কারনে আমরা নিহতের নানা মোফাজ্জলের বাড়ি থেকে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসি। এ ব্যাপারে নকলা থানায় অপমৃত্যু মামলা নিয়ে লাশ সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে পরিবারের নিকট লাশ হস্তান্তর করা হয়।


শেরপুরের নকলায় পুকুরের পানিতে ডুবে ৮ বছরের এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। রোববার (২২ আগস্ট) বিকেলের দিকে উপজেলা বানেশ্বর্দী ইউনিয়নরে বাউসা গ্রামের পুকুর থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। মারা যাওয়া ওই শিশুর নাম ইব্রাহিম। সে নালিতাবাড়ী উপজেলার তালতলা এলাকার এনার উদ্দিনের ছেলে।

শিশুটির মামা শিপন বলেন, ছোট বেলা থেকেই সে আমাদের (বাউসা এলাকায়) এখানে থাকে। আমরা তাকে স্থানীয় একটি স্কুলে শিশু শ্রেনিতে ভর্তি করে দেই। প্রতিদিনের মত রোববার সে সকালে স্কুল যায়। স্কুল থেকে এসে সকালের নাস্তা করে খেলাধুলা করার জন্য বাড়ি থেকে বের হয়ে পড়ে। দুপুর ঘড়িয়ে পড়লেও ইব্রাহিম বাড়িতে আসে না। পড়ে আমরা এদিক সেদিক খোঁজাখুঁজি করা শুরু করি। প্রায়দিনই সে ভাড়া নেওয়া মামুনের পুকুরের পাশে খেলাধুলা করে। পুকুরে পড়তে পারে বলে আমাদের সন্ধেহ হলে আমরা পুকুরে নেমে খোঁজাখুঁজি শুরু করলে ডুবন্ত অবস্থায় ইব্রাহিমের লাশ পাই। লাশ উঠানোর সময় তার চোখে ও অন্ডকোষে আঘাতের চিহ্ন দেখতে পাই। সংবাদ পেয়ে পুলিশ আসে পরে রাত অনুমান ৮টার দিকে ইব্রাহিমের লাশ থানায় নিয়ে যায়।   

নকলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মুশফিকুর রহমান বলেন, ঘটনাটি শুনামাত্রই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠাই। নিহতের পরিবার বিনা ময়নাতদন্তের মাধ্যমে লাশ দাফনের জন্য স্থানীয়দের মাধ্যমে অনুরোধ করে। কিন্তু আইনগত জটিলতার কারনে আমরা নিহতের নানা মোফাজ্জলের বাড়ি থেকে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসি।

এ ব্যাপারে নকলা থানায় অপমৃত্যু মামলা নিয়ে লাশ সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে পরিবারের নিকট লাশ হস্তান্তর করা হয়।

মন্তব্য

আরও দেখুন

নতুন যুগ টিভি